বৃহস্পতিবার, ০৯ এপ্রিল ২০২০, ০৮:০৮ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম
মহেশখালীতে নানা অজুহাতে পুলিশ পাহারায় চলাচল প্রসব যন্ত্রণায় কাতর প্রান্তি সেনকে হাসপাতালে নিয়ে গেল পুলিশ লকডাউন পর্যটন নগরী কক্সবাজার পালংখালীতে লকডাউন মানছেনা মাটি ও বালি খেকো সেন্ডিকেট নতুন আইজিপি ড. বেনজীর আহমেদ এর জীবনবৃত্তান্ত বাইশারীতে করোনাভাইরাস প্রতিরোধে সেনাবাহিনীর লিফলেট, মাস্ক ও ত্রান বিতরণ চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা ছাত্রলীগের উদ্যোগে সাতকানিয়ায় ১’শ পরিবারকে ত্রাণ বিতরণ করোনা প্রতিরোধে ১৫০ জনকে আবারো দক্ষিণ জেলা ছাত্রলীগের ত্রাণ বিতরণ ঘরে থাকুন,নিজে বাঁচুন,দেশকে বাঁচান-কাছের মানুষগুলোকে সুরক্ষিত রাখুন  দৌছড়ীতে আঃলীগ নেতার ইন্ধনে উন্নয়ন বোর্ড কর্তৃক নির্মিত পাড়া কেন্দ্র ভাংচুর আপনি ঘরে থাকলেই করোনা দুর্বল চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা ছাত্রলীগের অর্থ সম্পাদক রাশেদুল ইসলাম রাশেদ এর ত্রাণ বিতরণ
রোহিঙ্গা ক্যাম্পে “হোপ ফাউন্ডেশনে” শওকত আলীর সিন্ডিকেট বানিজ্য

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে “হোপ ফাউন্ডেশনে” শওকত আলীর সিন্ডিকেট বানিজ্য

ডেস্ক রিপোর্ট:: রোহিঙ্গা ক্যাম্পে কাজ করা হোপ ফাউন্ডেশনের বিরুদ্ধে সিন্ডিকেট বানিজ্য করে কোটি কোটি টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ উঠেছে। বিশেষ করে হোপ ফাউন্ডেশনে চাকরি করা একটি সিন্ডিকেট নিজেদের মাধ্যমে আদায় প্রদান করে এ লুটপাট চালিয়ে যাচ্ছে দীর্ঘদিন ধরে। যার নেতৃত্বে রয়েছেন হোপ ফাউন্ডেশনের কক্সবাজারের প্রজেক্ট ম্যানেজার শওকত আলী। জানা যায়,রোহিঙ্গা আগমনের শুরু থেকে সীমিত আকারে কাজ শুরু করে হোপ ফাউন্ডেশন। পরবর্তিতে তাদের পরিধি বৃদ্ধি পায়। বর্তমানে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে তাদের বেশ কয়েকটি হাসপাতাল পরিচালিত হচ্ছে। এসব হাসপাতালগুলোতে রোগীর চেয়ে কর্মকর্তা ও কর্মচারী বেশি। এসব কর্মকর্তা- কর্মচারীদের বেশীর ভাগ অলস সময় পার করে মাস শেষে হাতিয়ে নিচ্ছে মোটা অংকের বেতন। এ বেতন থেকে সিন্ডিকেট পাচ্ছে মোটা অংকের কমিশন। এছাড়া হাসপাতাল কর্মচারী আনা নেওয়ার কাজে নিয়োজিত নোহা, মাইক্রো থেকে শুরু করে টমটম পর্যন্ত সিন্ডিকেট নিয়ন্ত্রিত। প্রতিটি গাড়ী তাদের কিনে দেওয়া। হোপ ফাউন্ডেশননে চাকরি করার আড়ালে এ সিন্ডিকেট চাকরি ছাড়াও এ মাধ্যমে থেকে প্রতিমাসে হাতিয়ে নিচ্ছে প্রায় ২০ লাখ টাকা। বছরে যা কয়েক কোটি। কক্সবাজার প্রজেক্ট ম্যানেজার শওকত আলী তার মনোনীত উখিয়া ভিত্তিক একটি সিন্ডিকেটের মাধ্যমে উক্ত কার্যক্রম নিয়ন্ত্রণ করে থাকে। অভিযোগ রয়েছে,উখিয়া ভিত্তিক ঐ সিন্ডিকেট হোপ ফাউন্ডেশনে নিজস্ব বলয়ের লোক ছাড়া কাউকে নিয়োগ দেয়নি। কারন যদি কেউ গোমর ফাস করে, তাই উক্ত সিন্ডিকেট সক্রিয় থেকে গোপনে যাবতীয় কার্যক্রম পরিচালনা করে যাচ্ছে। এ ব্যাপারে বক্তব্য নিতে হোপ ফাউন্ডেশনের কক্সবাজারের প্রজেক্ট ম্যানেজার শওকত আলীর সাথে যোগাযোগ করলে তিনি ধমকের সুরে এসব কথা কে বলেছে জানতে চান ও পরে বিভিন্নজনের দ্বারা যোগাযোগ করিয়ে সংবাদ প্রকাশ না করার তদবির করেন। মানবতার সেবার নামে লুটপাটের মহোৎসবে নামা হোপ ফাউন্ডেশনের অনিয়ম দূর্নীতির আরো অনেক তথ্য পাওয়া গেছে।

সামাজিক মাধ্যমে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই সাইটের কোন লিখা বিনা অনুমতিতে কপি করা আইনত অপরাধ হিসেবে বিবেচিত হবে। সিটিবি নিউজ ২০১৮-১৯ সম্পাদক কতৃক সর্বস্বত্ত সংরক্ষিত, নিবন্ধনের জন্য তথ্য মন্ত্রণালয়ে আবেদিত।
Desing & Developed BY MONTAKIM